counter স্বাস্থ্য অধিদফতরের কালো তালিকায় ১৪ প্রতিষ্ঠান

বৃহস্পতিবার, ২৪শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ, ৯ই আশ্বিন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

স্বাস্থ্য অধিদফতরের কালো তালিকায় ১৪ প্রতিষ্ঠান

  • 6
    Shares

ডেস্ক নিউজ :  চলমান করোনাভাইরাস মহামারির এই সময়ে চিকিৎসা সরঞ্জাম ক্রয়ে দুর্নীতি ও সরকারি অর্থ আত্মসাতের অভিযোগে চৌদ্দটি ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠানকে কালো তালিকাভুক্ত করেছে স্বাস্থ্য অধিদফতর।

গত ৯ জুন স্বাস্থ্য সেবা বিভাগের ক্রয় ও সংগ্রহ অধিশাখার উপসচিব হাসান মাহমুদ স্বাক্ষরিত এক চিঠিতে এসব প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে অভিযোগ করে ব্যবস্থা নেয়ার জন্য মতামত ব্যক্ত করা হয়।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের নিয়ন্ত্রণে থাকা মেডিক্যাল কলেজ, হাসপাতাল ও প্রতিষ্ঠানের এমএসআর, ভারী মেশিন ও সামগ্রী কেনা কাটায় অনিয়ম ও দুর্নীতির ওঠা অভিযোগ তদন্ত করে ২০১৯ সালের ১২ ডিসেম্বর চৌদ্দটি ঠিকাদার প্রতিষ্ঠানকে কালো তালিকাভুক্ত করতে মন্ত্রীপরিষদ বিভাগের সচিবের কাছে চিঠি পাঠান দুদক সচিব।

এরপর এ মাসের ৬ তারিখ স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের স্বাস্থ্য সেবা বিভাগের ক্রয় ও সংগ্রহ অধিশাখা, স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক, কেন্দ্রীয় ঔষাধাগারের পরিচালকে দুদকের সুপারিশ অনুযায়ী ব্যবস্থা নিতে চিঠি দেন।

এ ছাড়া ১৪টি ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে দুর্নীতি করে ১৩১ কোটি টাকা আত্মসাতের অভিযোগে ৯টি মামলা রয়েছে। ২০১৮ ও ১৯ সালে দুদক এই মামলাগুলো করে।

সেই চিঠিতে দুর্নীতি দমন কমিশনের অভিমতের আলোকে সরকারি অর্থের যাথাযথ ব্যবহার নিশ্চিতকরণসহ ক্রয় কার্যক্রমে স্বচ্ছতা আনয়ন এবং দুর্নীতি, প্রতারণা ও চক্রান্তমূলক কার্যক্রম প্রতিরোধকল্পে ১৪টি ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠানসহ উক্ত ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠানের স্বত্বাধিকারীগণের বিরুদ্ধে অর্থ আত্মসাতের অভিযোগের রুজুকৃত মামলার তালিকা প্রেরণ করে সংশ্লিষ্ট ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠানসহ প্রতিষ্ঠানের স্বত্বাধিকারীগণেকে কালো তালিকাভুক্ত করা প্রয়োজন মর্মে অভিমত ব্যক্ত করা হয়।

এই বিভাগের আরো খবর