counter মানবিক দৃষ্টান্ত স্থাপন করলেন ফ্যাশন ফিট সু স্টোর

সোমবার, ১৯শে অক্টোবর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ, ৩রা কার্তিক, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

মানবিক দৃষ্টান্ত স্থাপন করলেন ফ্যাশন ফিট সু স্টোর

  • 34
    Shares

স্টাফ করেসপন্ডেন্টঃ

রাজধানী থেকে বহুদূরে মধুমতি নদীর তীর ঘেরা গোপালগঞ্জের কোটালিপাড়া উপজেলার ঘাঘর বাজারে (পুরাতন খেয়া ঘাট রোড) বে এমপোরিয়াল এর আউটলেট পাদুকা প্রতিষ্ঠান ফ্যাশন ফিট সু স্টোরে’র পরিচালক শ্রী উজ্জল দাস গোটা এলাকায় বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষের কাছে এখন অনুকরণীয় মানবিক কর্মকর্তা। এখানে পাদুকা প্রতিষ্ঠান শুরুর পর থেকেই তিনি সাধারণ মানুষের সেবায় কাজ করে চলেছেন। জনমানুষের স্বার্থে লড়ে যাচ্ছেন যাবতীয় অন্যায়-অবিচারের বিরুদ্ধে।

প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাস সারা বিশ্বের ন্যায় বাংলাদেশেও ব্যাপক আকার ধারণ করেছে। মানুষের অপমৃত্যু ঘটছে মরণঘাতী মহামারি এই ভাইরাসের ছোবলে।

করোনা ভাইরাসে জন জীবন আজ অসহায় ও বিপর্যন্ত। করোনাভাইরাসের এই মহামারিতে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে মাঠপর্যায়ে কর্মহীন, অসহায়-হতদরিদ্র মানুষের পাশে থেকে তিনি দায়িত্ব পালন করে যাচ্ছেন।

সামাজিক দূরত্ব নিশ্চিতের লক্ষে উপজেলার প্রত্যন্ত গ্রাম গুলোতে লোকজনদের সচেতন করার জন্য বুঝিয়ে চলছেন।

আবার করোনা আক্রান্ত লকডাউন এলাকাগুলোতে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে খাদ্যসামগ্রী নিয়ে নিজেই বাড়ি বাড়ি পৌঁছে দিয়েছেন। প্রায় উপজেলার প্রতিটি ইউনিয়নে মানবিক সহায়তা খাদ্যসামগ্রী সঠিকভাবে বিতরণের জন্য স্থানীয় জনপ্রতিনিধিদের সঙ্গে নিয়ে দুঃস্থ অসহায় কর্মহীনদের হাতে তুলে দিয়েছেন।

কোভিড-১৯ মোকাবেলার পাশাপাশি ঘূর্ণিঝড় আম্পানেও নিরলস ভাবে দায়িত্ব পালন করছেন। সেই সঙ্গে ঘূর্ণিঝড়ে কবলিত মানুষদের বিভিন্ন সাহায্য সহযোগিতা করেছেন।

বর্তমানে বন্যা পরিস্থিতিতে উপজেলার বন্যাকবিলত স্থানে সরজমিনে নিজে গিয়ে তাদের সাহায্য সহযোগিতা করেছেন এবং স্বাস্থ্য বিধি মেনে চলার পরামর্শ দিচ্ছেন। দিনরাত সশরীরে উপস্থিত হয়ে এবং মোবাইল এর মাধ্যমে খোঁজখবর নিয়ে আসছেন।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, কোটালিপাড়া উপজেলার ঘাঘর বাজারে (পুরাতন খেয়া ঘাট রোড) পাদুকা প্রতিষ্ঠান হিসেবে গত ১৪ই ফেব্রুয়ারিত ২০২০ ইং তারিখে উদ্বোধন করেন ফ্যাশন ফিট সু স্টোর নামে। আর শো-রুম উদ্বোধন করে প্রতিষ্ঠানের পরিচালক শ্রী উজ্জল দাস তিনি উপজেলার মানুষের প্রতি ভালোবাসার হাত বাড়িয়ে দেন। বাল্যবিয়ে ও যৌতুকপ্রথা বন্ধ, চাঁদাবাজি বন্ধ এবং মাদক নির্মূলে একের পর এক ঝুঁকি নিয়েছেন। আর জনহিতকর এসব কর্মকাণ্ড চালিয়ে তিনি এলাকার মানুষের অতি কাছের মানুষ হয়ে উঠেছেন।

স্থানীয় প্রশাসন সূত্রে জানা যায়, মানবিক এই প্রতিষ্ঠানের পরিচালক শ্রী উজ্জল দাস এই উপজেলা জুড়ে নানা সেবাধর্মী উদ্যোগ নিয়েছেন।

করোনা কালীন সময়েও ছুটে বেড়িযাছেন রাস্তা-ঘাটে। কি গরম আর কি বর্ষা। মাঠ-ঘাট সব এক করে ফেলেছে তার কর্মজজ্ঞ দিয়ে। করোনা কালীন সময়ে নিজ অর্থায়নে ত্রান ও আর্থিক সহায়তা নিয়ে দাড়িয়েছেন অসহায় ও সুবিধাবঞ্চিত মানুষদের পাশে।

বিশেষ সূত্রে আরও জানায়, ফ্যাশন ফিট সু স্টোরে’র পরিচালক শ্রী উজ্জল দাস চলমান করোনা দুর্যোগ মোকাবেলায় নানা উদ্যোগ নিয়ে চলেছেন। করোনা আক্রান্তদের দিন-রাত খোঁজ খবর নিয়েছেন। তাদের সুস্থতার জন্য অক্লান্ত পরিশ্রম করছেন। করোনা ভাইরাস ছাড়াও বন্যার্তদের মাঝেও প্রতিষ্ঠানের তহবিল থেকে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করছে।

এই বিভাগের আরো খবর