counter দেশের জন্য কাজ করে যাচ্ছেন গোপালগঞ্জ জেলার কোটালিপাড়া উপজেলার পাদুকা প্রতিষ্ঠান ফ্যাশন ফিট সু স্টোর

মঙ্গলবার, ২৭শে অক্টোবর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ, ১১ই কার্তিক, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

দেশের জন্য কাজ করে যাচ্ছেন গোপালগঞ্জ জেলার কোটালিপাড়া উপজেলার পাদুকা প্রতিষ্ঠান ফ্যাশন ফিট সু স্টোর

  • 175
    Shares

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ

একদিকে কোভিট ১৯ এর প্রাদুর্ভাব, অন্যদিকে বন্যার কবলে দেশবাসী। এই করোনা দুর্যোগে ও বন্যার্ত মানুষের পাশে রয়েছেন গোপালগঞ্জ জেলার কোটালিপাড়া উপজেলার ঘাঘর বাজারের পাদুকা প্রতিষ্ঠান ফ্যাশন ফিট সু স্টোর। এই মহা দুর্যোগকালে ব্যক্তিগত সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে প্রথমেই মানুষকে করোনাকালে দিয়েছেন খাদ্য সামগ্রী সহযোগিতা। আমাদের বিশেষ প্রতিনিধি আমাদের জানান, দেশে যখন প্রথম করোনাভাইরাস রোগী শনাক্ত হওয়ার পর থেকে ক্রমেই বাড়তে থাকে কোভিড-১৯ আক্রান্তের সংখ্যা।

সম্পূর্ণ নতুন এক মহামারীর ভয়ে মানুষ যখন দিশেহারা ও আতঙ্কিত। তখনই ফ্যাশন ফিট সু স্টোর সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এসে সরকারের নির্দেশ মেনে চলার জন্য দেশবাসীর প্রতি আহবান জানান, তিনি দেশের বিভিন্ন জেলায় নিজ অর্থায়নে করোনা দূর্যোগে কর্মহীন মানুষের পাশে থেকে খাদ্য সহায়তা অব্যাহত রেখেছেন। উল্লেখ্য গোপালগঞ্জ জেলার কোটালিপাড়া উপজেলার ঘাঘর বাজারে (পুরাতন খেয়া ঘাট) রোডে ফ্যাশন ফিট সু স্টোরে’র পরিচালক মিঃ উজ্জল দাস কোটালিপাড়ার ডহর পাড়া গ্রামের কৃতিসন্তান। তিনি বর্তমান সফল প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার একজন অগ্রসৈনিক হিসেবে কোটালিপাড়া আওয়ামীলীগের রাজনীতিতে বলিষ্ঠ ভাবে সংগঠনের জন্য কাজ করে যাচ্ছেন। এদিকে, অতিবৃষ্টি আর পাহাড়ি ঢলে পরপর তিন দফা বন্যার কবলে পড়ে দেশবাসী। দেশের কোটি মানুষ পানিবন্দী হয়ে পড়ে। করোনা দুর্যোগকালে এমন প্রাকৃতিক দুর্যোগের মোকাবিলায়ও সাধারণ মানুষের পাশে গিয়ে দাঁড়ান ফ্যাশন ফিট সু স্টোরে’র পরিচালক উজ্জল দাস। দুর্গত মানুষকে খাদ্য সহায়তা, নগদ অর্থ, হ্যান্ড স্যানেটাইজার, মাস্ক থেকে শুরু করে সব ধরনের সহযোগিতার হাত প্রসারিত করেন নিজ অর্থায়নে।

ঈদুল ফিতর ও ঈদুল আযহার আগে ও পরে নিজ তহবিল থেকে গরিবদের নগদ টাকা বিতরণ ও একহাজারের ও বেশি হ্যান্ড স্যানেটাইজার / মাস্ক বিতরন করেন। মহামারী চলা অবস্থায় প্রাকৃতিক এ দুর্যোগের সময় এলাকার সংগঠনের নেতাকর্মী দিয়ে দুর্যোগ মোকাবিলায় সাধারণ মানুষকে শক্তি আর সাহস জোগান এই অগ্রগামী মানুষটা।

ফ্যাশন ফিট সু স্টোরে’র পরিচালক উজ্জল দাস আমাদের প্রতিনিধিকে বলেন, করোনা মহামারী এবং এক মাসের মধ্যে তিনবারের বন্যায় কষ্টে আছেন দেশের আপামর মানুষ। করোনার শুরু থেকে বন্যার সময় মানুষের পাশেই আছি। সামর্থ্যরে সর্বোচ্চ দিয়ে মানুষের জন্য কাজ করছি এবং সৃষ্টিকর্তা সহায় থাকলে সব সময় পাশে থাকবো।

এই বিভাগের আরো খবর